ব্রেকিং নিউজ :
August 31, 2017

‘বাংলাদেশে যাও, দেখা হবে স্বাধীন আরাকানে নয়তো জান্নাতে’

২৪ আগস্ট মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে ৩০টি পুলিশ ফাঁড়ি ও একটি সেনা ছাউনিতে ‘রোহিঙ্গা বিদ্রোহীদের’ হামলার ঘটনায় নিরাপত্তা বাহিনীর ১২ সদস্যসহ অন্তত ৯৬ জন নিহত হয়েছেন। এদের মধ্যে রোহিঙ্গা বিদ্রোহীদের ৮৪ জন নিহত হয়। এরপর থেকেই উত্তপ্ত হয়ে উঠে মায়ানমার।

দেশটির নিরাপত্তাবাহিনীর বিরুদ্ধে কয়েক হাজার রোহিঙ্গা হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। বাড়ি ছাড়া হয়েছে হাজার হাজার মুসলিম জনগোষ্ঠী রোহিঙ্গা। প্রাণের ভয়ে সীমান্ত পেড়িয়ে বাংলাদেশ আশ্রয় খুঁজছে তারা। বাংলাদেশ ইতোমধ্যে ২০ হাজারের বেশি রোহিঙ্গা আশ্রয় নিয়েছে বলে জানিয়েছে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম। তবে সেই সংখ্যা অনেক বেশি হবে ধারণা করছেন বিশেষজ্ঞরা।

মায়ানমার থেকে বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছেন ২৫ বছর বয়সী আয়েশা বেগম। তিনি  গর্ভবতী, তবুও তার ঠিকানা হয়েছে রোহিঙ্গা আশ্রয় শিবিরে। সন্তান জন্মদানের সময় স্বামী কাছে থাকবে না বলে কোনো দুঃখ নেই তার। কেননা তার স্বামী মিয়ানমার সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে অস্ত্র ধরেছে। অত্যাচার-নিপীড়নের হাত থেকে রক্ষা পেতে আয়েশার স্বামীর মতো অনেকেই এখন বিদ্রোহে নামছে।

নাফ নদীর এক পাড়ে প্রাণের স্পন্দন থাকলেও অপর পাশে চলছে মায়ানমার নিরাপত্তাবাহিনীর বর্বর হত্যাকাণ্ড। দীর্ঘদিন ধরে চলে আসা শোষণ-নিপীড়নের প্রতিবাদে সাধারণ রোহিঙ্গারা অস্ত্র হাতে নিচ্ছেন। তাদেরই একজনের স্ত্রী এই আয়েশা বেগম। তিনি জানান, ‘আমার স্বামী আমাদের সীমান্ত পার করিয়ে দিয়েছেন। যাওয়ার সময় বলেছেন, ‘বেঁচে থাকলে শিগগিরই স্বাধীন আরাকানে (রোহিঙ্গা রাজ্য) আর মারা গেলে জান্নাতে আমাদের দেখা হবে।’

একই রকম সংবাদ

সম্পাদকঃ আলী অাহমদ
যোগাযোগঃ ১৪৮/১, গ্রীণ ওয়ে, নয়াটোলা, মগবাজার, ঢাকা-১০০০
ফোনঃ ০১৭৯৪৪৪৯৯৯৭-৮
ইমেইলঃ bangladesh24online.news@gmail.com

Copyrıght Bangladesh24online @ 2015.               এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি ।