ব্রেকিং নিউজ :
September 3, 2017

স্ত্রীকে যে কথা কখনোই বলা উচিত নয়

পৃথিবীর যে কোনও সম্পর্কই জটিল। আর স্বামী–স্ত্রীর আরও জটিল। এই সম্পর্কের রসায়ন ঠিক না থাকলে মধুর সম্পর্ক রূপ নিতে পারে তিক্ততায়।

বিশেষ করে স্বামীদের স্ত্রীর প্রতি কথা বলার ক্ষেত্রে সতর্ক থাকা জরুরী। কারণ এই সম্পর্ক বন্ধুত্বের হলেও কিছু কিছু কথা না বলাই ভালো। ভুলেও বলে ফেললে দাম্পত্যে ঝামেলা সৃষ্টি হতে পারে। আসুন এ বিষয়ে বিস্তারিত জেনে নিই-

খাওয়া নিয়ে কোনো কথা নয়

না বুঝে বা বুঝেই স্ত্রীর খাবার খাওয়া নিয়ে স্বামীরা কথা বলেন অনেক সময়। কোনো মানুষকে তাঁর খাওয়ার বিষয়ে কিছু বলা উচিত নয়। কেউ বেশি খান, কেউ কম—একেক জনের খাদ্যাভ্যাস একেক রকম। সেটা মাথায় রাখতে হবে। স্ত্রীর প্রতি সচেতন থাকলে বুঝিয়ে খুবই বিনয়ের সঙ্গে বলবেন। কোনোভাবেই যেন ব্যঙ্গ না হয়।

তোমাকে দিয়ে কিছু হবে না

অনেক স্বামীর মুখে এ ধরনের কথা শোনা যায়। গৃহিণী থেকে শুরু করে কর্মজীবী নারীদের এই কথা শুনতে হয়। অনেক স্বামী বলেন, অন্যের বউ সবই সামলায়,  তোমাকে দিয়ে কিছু হবে না। তোমার মায়ের মতো হয়েছ।এই সব ব্যাপারে কথা   বলা মানে হলো, আপনার মানসিকতা কতটা নিচু, তার প্রকাশ করে।

আমার মায়ের মতো করো

ধরুন একদিন শখ করে স্ত্রী মাছ/মাংস রান্না করলেন। খেতে খেতে আপনি বললেন, আমার মায়ের মতো হয়নি। মায়ের কাছ থেকে শিখে নিয়ো। সাধারণত স্ত্রীরা এ ধরনের কথা মেনে নিতে পারেন না। শাশুড়ির সঙ্গে নিজের তুলনা করলে গুরুত্ব কমে যাচ্ছে কি না, এ ধরনের একটা জটিলতা তৈরি হয় তার মধ্যে। স্বামী হিসেবে আপনাকে মনে রাখতে হবে, যার প্রশংসা তার সামনে তাকে করুন। কাউকে ছোট করে নয়।

সাবেক প্রেমিকা বা স্ত্রী এই কাজ করত

সংসারে শান্তি চাইলে কখনোই সাবেক প্রেমিকা বা স্ত্রীর কথা মনে করিয়ে দেবেন না আপনার স্ত্রীকে। অভিমানের বাষ্প এমন রূপ নেবে যে নিজেই নিশ্বাস নিতে পারবেন না। স্বস্তি চাইলে সব ভুলে যান।

সুতরাং স্ত্রীকে সম্মান করতে শিখুন, ছোট করা নয়। তাহলে সংসারে শান্তি বিরাজ করবে।

সূত্র: হাফিংটনপোস্ট, ফ্যামিলি ম্যাগাজিন, প্রথম আলো

একই রকম সংবাদ

সম্পাদকঃ আলী অাহমদ
যোগাযোগঃ ১৪৮/১, গ্রীণ ওয়ে, নয়াটোলা, মগবাজার, ঢাকা-১০০০
ফোনঃ ০১৭৯৪৪৪৯৯৯৭-৮
ইমেইলঃ [email protected]

Copyrıght Bangladesh24online @ 2015.               এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি ।